টসে হেরে ব্যাটিংয়ে কুমিল্লা:১০ ওভার শেষে রান ৭৩/১

দেখতে দেখতে শেষ হয়ে এলো বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের ষষ্ঠ আসর। অবশেষে সেই মাহেন্দ্রক্ষণের অপেক্ষা শেষ হতে চলেছে। বিপিএল ষষ্ঠ আসরের ফাইনাল ম্যাচের মহারণে মাঠে নেমেছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ও ঢাকা ডায়নামাইটস।

শুক্রবার (৮ ফেব্রুয়ারি) মিরপুর শের-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা ৭টায় বিপিএলের ফাইনাল ম্যাচে টসে জিতে ফিল্ডিং বেছে নিয়েছে ঢাকা ডায়নামাইটস।

বিপিএলের আগের পাঁচ আসরের মধ্যে তিনটিতেই শিরোপা জিতেছে ঢাকা। ঢাকা গ্ল্যাডিয়েটর্স নামে তারা জিতেছে বিপিএলের প্রথম দুই আসর-২০১২ আর ২০১৩ সালে।ফিক্সিংয়ের দায়ে নিষিদ্ধ হতে হয় ফ্র্যাঞ্চইজিকে। তবে তৃতীয় আসরে ঢাকা ফিরে আসে নতুন মালিকানা ও নামে। ঢাকা ডায়নামাইটস নামে ২০১৬ সালে শিরোপা জিতে তারা । এবার জিতলে ঢাকার হবে চতুর্থ শিরোপা।

বাকি দুইবারের মধ্যে তৃতীয় আসরে মাশরাফি বিন মর্তুজার নেতৃত্বে শিরোপা ঘরে তোলে কুমিল্লা। পঞ্চম আসরে ফাইনাল খেললেও রংপুরের কাছে হেরে যায়।ফলে পঞ্চম আসরে সেই মাশরাফি বিন মর্তুজার নেতৃত্বে রংপুর রাইডার্স শিরোপা জয় করে।ষষ্ঠ আসরে কুমিল্লা এবার খেলছে ইমরুল কায়েসের নেতৃত্বে। তৃতীয়বারের মতো ফাইনাল খেলছে অভিজ্ঞতা ও তারুণ্যের মিশেলে দারুণ ছন্দে থাকা দলটি।

ঢাকাকে বলা হচ্ছে অলরাউন্ডারদের দল। দলে পেস বোলিং অলরাউন্ডার আছেন দু’জন। স্পিনিং অলরাউন্ডার মিলিয়ে সংখ্যাটা দাঁড়ায় চারজনে। আন্দ্রে রাসেল, কাইরন পোলার্ড, সুনীল নারাইন ও সাকিব নিজে আছেন। অলরাউন্ডারে ভরপুর এই দলের প্রধান শক্তি এই অলরাউন্ডাররাই।

ভিক্টোরিয়ান্সও পিছিয়ে নেই। তাদের দলে আছেন মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, থিসারা পেরেরা ও শহীদ আফ্রিদির মতো অলরাউন্ডাররা। তবে দলের প্রধান শক্তি তাদের ব্যাটসম্যানরা। তামিম ইকবাল, ইমরুল কায়েসের মতো ব্যাটসম্যানরা জ্বলে উঠলে আসবে বড় স্কোর।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ১০ ওভার শেষে ১ উইকেট হারিয়ে কুমিল্লার সংগ্রহ ৭৩ রান।দ্বিতীয় ওভারের চতুর্থ বলে রুবেল হোসেনকে কাভার দিয়ে চার হাঁকিয়েছিলেন এভিন লুইস। পরের বলেই বাঁহাতি ব্যাটসম্যানকে ফিরিয়ে প্রতিশোধ নেন রুবেল। ডানহাতি পেসারের হাফভলি বলের লাইন মিস করে এলবিডব্লিউ হন ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যান। অবশ্য রিভিউ নিয়েছিলেন তিনি। আল্ট্রাএজে বল আগে ব্যাটে লাগারও একটা সংকেত পাওয়া যায়। তবে বল ও ব্যাটের মাঝে অনেকটা ফাঁকাও দেখা যায়। শেষ পর্যন্ত মাঠের আম্পায়ারের সিদ্ধান্তই টিকে যায়।

৭ বলে একটি চারে ৬ রান করে ফেরেন লুইস। তাতে ভাঙে ৯ রানের উদ্বোধনী জুটি।উইকেটে আছেন তামিম ইকবাল (৩৮) এবং এনামুল হক বিজয় (২১)।

ঢাকা ডায়নামাইটসের একাদশ
সাকিব আল হাসান (অধিনায়ক),রনি তালুকদার,নুরুল হাসান (উইকেটরক্ষক),সুনীল নারাইন,উপুল থারাঙ্গা, কাজী অনিক,কাইরন পোলার্ড,আন্দ্রে রাসেল,শুভাগত হোম,রুবেল হোসেন ও মাহমুদুল হাসান।

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের একাদশ
ইমরুল কায়েস (অধিনায়ক),তামিম ইকবাল, আনামুল হক (উইকেটরক্ষক),শামসুর রহমান,এভিন লুইস, থিসারা পেরেরা,শহীদ আফ্রিদি,মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, মেহেদি হাসান,ওয়াহাব রিয়াজ ও সঞ্জিত সাহা।

LEAVE A REPLY